Connect with us

North East

মাছ- মাংস – ডিম থেকে কোরোনা ভাইরাস সংক্রমণের সস্বাবনা নেই বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা

Published

on

দীলু দাস, যুব দর্পণ ডিজিটাল, শিলচর: সার্স এবং মার্সের মতো COVID-19 সংক্রমণের প্রাথমিক উৎস হয়তো কোনও পশু-পাখি । যদিও সেটি প্রমাণিত হয়নি এখনও পর্যন্ত। তবে, এই ভাইরাস কোনো ভাবে ছড়াচ্ছে না মুরগি বা মাছ থেকে। আক্রান্ত মানুষের শরীর থেকেই ছড়াচ্ছে COVID-19-এর সংক্রমণ। মাছ, মাংস, ডিম কোনও কিছু থেকেই COVID-19 সংক্রমণের কোনও আশঙ্কা নেই বলেই চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন। কিন্তু কীভাবে মিলবে এই COVID-19 থেকে মুক্তি ? ভিটামিন C কি কোরোনা ভাইরাস থেকে মুক্তি দেবে ? প্রশ্ন উঠেছে এই নিয়েও।

২০১৯ -এর ডিসেম্বর মাসে নভেল কোরোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ে চিনের ইউহান, হুবেই প্রদেশ থেকে। মনে করা হচ্ছে নতুন এই ভাইরাসের সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার সঙ্গে যোগ রয়েছে বলে হুনান সিফুড হোলসেল মার্কেটের। ২০০২ -২০০৩ -এ সার্স বা সিভিয়ার অ্যাকিউট রেসপিরেটরি সিনড্রোম (SARS Coronavirus অর্থাৎ SARS-CoV)-এর সঙ্গে চিনে খোঁজ পাওয়া নভেল কোরোনা ভাইরাসের মিল থাকায় নাম দেওয়া হয় SARS-CoV-2 । নতুন ধরনের এই ভাইরাসের সংক্রমণে যে ধরনের অসুস্থতা ধরা পড়ছে তার ভিত্তিতে COVID-19 নাম দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (WHO)। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত COVID-19- এ এই রাজ্যে কোনও আক্রান্তের খোঁজ পাওয়া যায়নি এখনও পর্যন্ত। তবে, এদেশে এখনও পর্যন্ত খোঁজ পাওয়া গিয়েছে ৪৭ জন আক্রান্তের। এদিকে এই পরিস্থিতিতে বিভিন্ন ভ্রান্ত ধারণা এবং আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে সাধারণ মানুষের মধ্যেও। যদিও স্বাস্থ্য দপ্তরের তরফে প্রচেষ্টাও চলছে সাধারণ মানুষের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে। মানুষের মধ্যে আতঙ্ক এতটাই ছড়িয়েছে যে, এখন কোরোনার ভুত দেখছে মুরগির মাংস থেকে শুরু করে মাছ এমনকি ডিমেও।

আর জি কর মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের ক্রিটিক্যাল কেয়ার ইউনিটের চিকিৎসক সুগত দাশগুপ্ত বলেন, “ভারত সরকার স্পষ্টভাবে জানিয়েছে, এখনও পর্যন্ত প্রমাণিত হয়নি মুরগির মাংস, ডিম, এগুলির থেকে COVID-19-র সংক্রমণের ঝুঁকি। কাজেই কোনও কারণ নেই এই নিয়ে অকারণে বিতর্ক তৈরি করা বা ভয় পাওয়ার। প্রথমে ইউহানে যখন নভেল কোরোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব দেখা দেয় তখন বলা হয়েছিল, একটি মার্কেটে বিক্রি হচ্ছিল কিছু সিফুড এবং বাদুর বা সাপের মতো কিছু প্রাণী সেখান থেকেই ছড়িয়েছে এই ভাইরাস। কাজে এতে কোনও সন্দেহ নেই যে COVID-19 একটি জ়ুনোটিক ডিজ়িস।

কলকাতার আনন্দপুরে অবস্থিত বেসরকারি একটি হাসপাতালের ইমার্জেন্সি মেডিসিন বিভাগের প্রধান এবং সোসাইটি ফর ইমার্জেন্সি মেডিসিন ইন্ডিয়ার ওয়েস্ট বেঙ্গলের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট চিকিৎসক সংযুক্তা দত্ত জানান, “এই আতঙ্ক সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন । কারণ মাছ, মাংস, ডিম থেকে COVID-19-এর সংক্রমণ ছড়াচ্ছে এখনও পর্যন্ত আমরা পাইনি তার কোনও রকম প্রমাণ। চিনে হয়তো ওরা প্রচুর বন‍্য জন্তুর সংস্পর্শে আসে বা রান্না না করা মাংসই খেয়ে থাকে। তাই সন্দেহ করা হয়েছে সেখান থেকে কোরোনা ছড়িয়েছে বলেই। কিন্তু বাকি যাদের সংক্রমণ হয়েছে সেগুলি ছড়িয়েছে আক্রান্ত মানুষের থেকেই। এর জন্য মাছ, মাংস, ডিম খাওয়া ছেড়ে দিলাম এটা কোনও কাজের কথা নয়। মাছ, মাংস, ডিম যেভাবে স্বাভাবিক সেভাবেই খান । তবে, রান্না না করে খাবেন না ।

COVID-19-এর সংক্রমণ রুখতে ভিটামিন C কতটা উপযোগী, সে বিষয়ে চিকিৎসক সংযুক্তা দত্ত আরও বলেন, “COVID-19 এতটাই নতুন যে এখনও পর্যন্ত এর উপর সেভাবে গবেষণাই হয়নি। সুতরাং, ভিটামিন C কোরোনা সংক্রমণ রুখতে পারে কি না সেটা বলার কোনও অর্থই হয় না । তবে, বলা যায় ভিটামিন C সমৃদ্ধ খাবার সাহায্য করে শরীরের ইমিউনিটি পাওয়ার বাড়াতে। সুষম আহার, হেলদি ডায়েট, এসবও ইমিউনিটি পাওয়ার বাড়াতে সাহায্য করে।”

Continue Reading

North East

সাংবাদিক সুবীর দত্তের পিতৃ বিয়োগ

Published

on

যুব দর্পণ প্রতিনিধি, ২৪ জুন, শিলচর :: বিশিষ্ট সাংবাদিক সুবীর দত্তের পিতা সুকুমার দত্ত আজ সকালে ত্রিপুরার কৈলাসহর সরকারী জেলা হাসপাতালে শেষনিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। গত দুই দিন থেকে হৃদরোগ জনিত কারণে উনাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল । উল্লেখ্য যে, প্রয়াত সুকুমার দত্তের জন্ম ২৯ সেপ্টেম্বর ১৯৩১ সালে। মুরারি চাঁদ কলেজ থেকে আই এস সি পাশ করে।, পরবর্তী সময়ে কোলকাতার বঙ্গবাসী কলেজ থেকে বি এস সি পাশ করে অটোমোবাইল ও রেডিও টেকনিশিয়ান এ ডিপ্লোমা কোর্স করেছেন জর্জ টেলিগ্রাফ কোলকাতা থেকে। তারপর ১৯৬৫ সালে ত্রিপুরা রাজ্যে এসে ICAT ডিপার্টমেন্টে চাকরিতে যোগদান করে ১৯৯১সালে অবসর গ্রহণ করেছেন।
উনি রেখে গেছেন স্ত্রী এক ছেলে ,এক মেয়ে , পুত্রবধূ সহ অসংখ্য শুভাকাঙ্ক্ষী

Continue Reading

Barak Valley

শিলচরে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করলো গৈরিক ভারত

Published

on

যুব দর্পণ প্রতিবেদন, ১৫ জুন ২০২১ ইং, শিলচর :: করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত ও কার্ফুর ফলে অনেক মধ্যবিত্ত পরিবারের আর্থিক অবস্তা শোচনীয় , এই কঠিন পরিস্থিতিতে শিলচরের মালুগ্রামে আবারও ত্রাণ বিতরণ করল সেচ্ছাসেবী সংগঠন ” গৈরিক ভারত ” । আজ মঙ্গলবার করোনায় আক্রান্ত বৃহত্তর মালুগ্রামের বিভিন্ন অঞ্চলে গৈরিক ভারতের শিলচর নগর সভাপতি কানাই দেবনাথের ব্যবস্থাপনায় ও সংগঠনের বরাক উপত্যকার কার্যকরি সভাপতি সুমিত রঞ্জন দাস, কাছাড় জেলার কার্যকরি সভাপতি টুটুল ভট্টাচার্য ও শিলচর নগর সাধারণ সম্পাদক সঞ্জীব নাথের বিশেষ উদ্যোগে , করোনার এই দুঃসময়ে চাউল,আলু, ভোজ্য তেল, সোয়াবিন, বিস্কুট, সহ বিভিন্ন খাদ্য সামগ্রী বন্টন করা হয়। সম্পূর্ণ সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে, অত্যন্ত সুশৃংখলভাবে এই খাদ্য সামগ্রী বিতরণ কর্মসূচি পালন করা হয়।এদিনের ত্রাণ বন্টন কর্মসূচি চলাকালীন সময়ে গৈরিক ভারতের পক্ষে কাছাড় জেলার কার্যকরি সভাপতি টুটুল ভট্টাচার্য, শিলচর নগর সভাপতি কানাই দেবনাথ, সদস্যা সুপ্তা ধর বলেন, এই সেবা কাজের মাধ্যমে যারা ত্রাণ সামগ্রী সংগ্রহ করেছেন তাদের কাছে গৈরিক ভারত কৃতজ্ঞ। যারা ত্রাণ সামগ্রী সংগ্রহ করেছেন তারা এই ত্রাণ সামগ্রী সংগ্রহ করে, পুণ্য অর্জনের সুযোগ করে দেওয়ার জন্য গৈরিক ভারতের কর্মকর্তারা তাদের কৃতজ্ঞতা জানান। আজকের এই ত্রাণ সামগ্রী বিতরণের সময় কাছাড় জেলার কার্যকরি সভাপতি টুটুল ভট্টাচার্য,শিলচর নগর সভাপতি কানাই দেবনাথ, শিলচর নগর সাধারণ সম্পাদক সঞ্জীব নাথ, বিপ্লব রায়, সুদীপ রবিদাস, গোবিন্দ সিং, সুপ্তা ধর সহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

Continue Reading

North East

SPARKS MRS ASSAM শিরোপা অর্জন করলেন শিলচরের ঝনকা ঘোষ পাল

Published

on

যুব দর্পণ সাংস্কৃতিক প্রতিনিধি, ২৪ ফেব্রুয়ারি, শিলচর :: উত্তর পূর্বাঞ্চলের অন্যতম জনপ্রিয় ফ্যাশন শো ও প্রতিযোগিতা ” SPARK ” Miss, Mrs & Mr Assam এর MRS ASSAM এর শিরোপা অর্জন করলেন শিলচরের গৃহবধূ শ্রীমতি ঝানকা ঘোষ পাল।

স্পার্ক এর উদ্যোগে উত্তর পূর্বাঞ্চল সহ কলকাতা, দিল্লী সহ বিভিন্ন স্হানের কয়েক শতাধিক প্রতিযোগিদের অডিশনের মাধ্যম নির্বাচিত করে ১১ টি জোনে প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয় এবং এই ১১ জন জোনের চ্যাম্পিয়নদের নিয়ে গত ১২ ফেব্রুয়ারি আই টি এ মাছখোয়াতে অনুষ্ঠিত হয় প্রতিযোগিতার মেগা ফাইনাল ।

উক্ত প্রতিযোগিতায় বরাক উপত্যকা জোন থেকে জয়ী হয়ে মেগা ফাইনালে নিজের দক্ষতা ও প্রতিভার স্বাক্ষর রেখে Mrs Assam এর শিরোপার সস্মান অর্জন করেন শিলচরের তরুণ নৃত্যশিল্পী ঝনকা ঘোষ পাল । Mrs Assam শিরোপা অর্জন করে শিলচরের সস্মান বাড়ানোর জন্য শ্রীমতি ঝনকা ঘোষ পাল কে বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন, বিশিষ্ট জনেরা উনার উজ্জ্বল ভবিষ্যৎ কামনা করে অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

Continue Reading

Trending